Breaking News
Home / Politics / ভাইয়ের কারণেই মহা বি’পদে আছে ওবায়দুল কাদের

ভাইয়ের কারণেই মহা বি’পদে আছে ওবায়দুল কাদের

 

আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ওবায়দুল কাদের এক বিব্রতকর পরিস্থিতির মধ্যে পড়েছেন । আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক হওয়ার পর এরকম কখনও চ্যা’লেঞ্জের মুখে পড়েননি তিনি। শুধু দলে যে তার অবস্থা চ্যা’লেঞ্জের মুখে পড়েছে তা নয় নোয়াখালী তার নির্বাচনী এলাকাতেও তিনি সং’ক’টে পড়েছেন। নোয়াখালীতে আওয়ামী লীগের অন্যান্য এমপিরা এবং আওয়ামী লীগের একটি বড় অংশ ওবায়দুল কাদেরকেই দায়ী করছেন তার ভাই কাদের মির্জার বাড়াবাড়ির জন্য।

নোয়াখালীর আওয়ামীলীগের একজন এমপি বলেছেন,ওবায়দুল কাদেরের আশকারাতেই কাদের মির্জা প্রতিনিয়তই এরকম নাটক তৈরি করছেন। যদি ওবায়দুল কাদের তাকে প্রথমেই দ’ম’ন করতেন তাহলে এরকম পরিস্থিতি সৃষ্টি হতো না। নোয়াখালীর আওয়ামী লীগের অনেকেই মনে করেন , কাদের মির্জার শুরুটা ছিল ওবায়দুল কাদেরের ইন্ধনে । তিনি এক ঢিলে দুই পাখি মা’র’তে চেয়েছিলেন ।

প্রথমত, তিনি চেয়েছিলেন কাদের মির্জা উদ্ভট বক্তব্য দিয়ে রাজনীতিতে আলোচিত হবেন, এবং বসুরহাট পৌরসভায় বিজয়ী হবেন। দ্বিতীয়ত, তিনি চেয়েছিলেন যে কাদের মির্জার উ’ত্থানের ফলে এমপি একরাম সহ আওয়ামী লীগের যারা ওবায়দুল কাদের বি’রো’ধী তারা কো’ণঠা’সা হয়ে পড়বে এবং তাদেরকে রাজনৈতিকভাবে একেবারে নির্বাসনে পাঠানো যাবে। কিন্তু এটি করতে যেয়ে এখন টালমাটাল অবস্থা সৃষ্টি হয়েছে নোয়াখালীতে।

আর নোয়াখালীর এই বি’ভ’ক্তি সারাদেশেই প্রশ্ন তুলেছে ওবায়দুল কাদেরের নেতৃত্ব নিয়ে। ওবায়দুল কাদের আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক। সাধারণ সম্পাদকের প্রধান দায়িত্ব হলো দলের সাংগঠনিক তৎপরতা কে অখণ্ড রাখা , দলকে ঐক্যবদ্ধ রাখা এবং দলের সভাপতির নির্দেশে দলের শৃ’ঙ্খলা র’ক্ষা করা।

কিন্তু যিনি নিজের ভাইকেই শৃঙ্খলার মধ্যে রাখতে পারেনি তিনি দলকে কিভাবে শৃঙ্খলার মধ্যে রাখবেন সেই প্রশ্ন এখন রাজনৈতিক অঙ্গনে উঠেছে ‌। আজ বসুরহাটের আওয়ামী লীগের দুই পক্ষের গো’’লাগু’’লি, তা’ণ্ড’বের পর সাধারণ সম্পাদক হিসেবে ওবায়দুল কাদের এর অবস্থান এবং কর্তৃত্ব চ্যালেঞ্জের মুখে পড়েছে।

তিনি সাধারণ সম্পাদক হওয়ার পরও কিভাবে তার এলাকায় এ ধরনের ঘ’টনা ঘ’টে সেটি নিয়ে আওয়ামী লীগের অনেক সিনিয়র নেতা প্রশ্ন তুলছেন। দ্বিতীয় দফায় সাধারণ সম্পাদক হওয়ার পর ওবায়দুল কাদেরের সঙ্গে অনেক সিনিয়র নেতাদের একটা শীতল সম্পর্ক চলছিল। অনেকেই তার ঘরে বসে থেকে বক্তৃতা বিবৃতি দেওয়াকে স্বাভাবিকভাবে মেনে নেয়নি। এবং এখন কাদের মির্জা এই ঘটনার পর ওবায়দুল কাদেরের বি’রো’ধী পক্ষ দলের ভেতরে সোচ্চার হচ্ছে।

বিশেষ করে দলের ভেতরে যারা সক্রিয় স’জ্জন সদস্য এবং যুগ্ম সাধারণ সম্পাদকের মধ্যে অন্তত দুইজন সরাসরি ওবায়দুল কাদেরের বি’রু’দ্ধে অবস্থান নিয়েছেন বলেও জানা গেছে। ফলে ,এই ঘ’টনা আওয়ামী লীগকে একটি বি’ব্র’তকর পরিস্থিতির মুখে ফেলেছে। আওয়ামী লীগের একজন নেতা বলেছেন এর আগে কখনো একজন দলের সাধারণ সম্পাদক তার এলাকায় এরকম সং’ক’টের মধ্যে পড়েনি।

এবং এই সংকট উত্তরণে ওবায়দুল কাদের কি করবেন সেটাই এখন দেখার বিষয়। কারণ ওবায়দুল কাদের এর ঘ’নি’ষ্ঠরা বলছেন, বসুরহাটের যে ঘট’না ঘ’টছে তা ওবায়দুল কাদেরের নিয়ন্ত্রণের বাইরে। কারণ তার ভাই একজন কর্তৃত্ববাদী নেতা এবং তার ভাইকে নিয়ন্ত্রণ করা ওবায়দুল কাদের কেন কারো পক্ষেই সম্ভব না। আর এই ঘটনায় তিনি বি’ব্র’তও বটে।

About admin

Check Also

বরিশালে বি’ক্ষোভ সমাবেশে সরকারকে উদ্দেশ্য করে যা বললেন ইশরাক

  বিএনপির আন্তর্জাতিকবিষয়ক কমিটির অন্যতম সদস্য প্রকৌশলী ইশরাক হোসেন বলেছেন, আম’রা গণতন্ত্র পুনরাদ্ধের আ’ন্দোলনে আছি। …

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *